পীরগঞ্জ হিমেল বাতাস আর কুয়াশার কারণেই শীতের তীব্রতা বেড়েছে।

প্রকাশিত: ৭:১১ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০২১

পীরগঞ্জ প্রতিনিধিঃ রবিবার(১৭জানুয়ারি) বেলা বাড়লেও দেখা মেলেনি সূর্যের। হিমেল বাতাস আর কুয়াশার কারণেই শীতের তীব্রতা বেড়েছে। ফলে ক্ষেতে খামারে কাজে করতে যেতে পারছেন না নিম্নআয়ের মানুষ।

পীরগঞ্জ উপজেলার মোঃ বজলুর রশিদ বলেন আমরা সারাদিনের উপার্জনের টাকা দিয়ে সংসার চালাই। ঘন কুয়াশা আর তীব্র শীতের কারণে কাজে যেতে পারছিনা।

ফলে খুবই কষ্টে দিন অতিবাহিত করতে হচ্ছে আমাদের। একে তো শীতের কাপড়ের কষ্ট। তার ওপর কাজ কাম না করলে খাবার-দাবারের কষ্ট। রিকশাচালক রফিকুল জানান, কয়েকদিন আগে যে ঠাণ্ডা গেল এরকম আবহাওয়া ছিল না। এখন আবহাওয়া আরও একটু পরিবর্তন হয়েছে।

আগে শুধু ঠাণ্ডা ছিল এরকম ঘন কুয়াশা ছিল না। এখন একদিকে ঠাণ্ডা অন্যদিকে ঘন কুয়াশা। তাই প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে মানুষ বের হচ্ছে না। আগে ভ্যান চালিয়ে দিনে ইনকাম হতো ৫০০ থেকে ৭০০ টাকা। এখন সারাদিনে ৩০০ টাকা ইনকাম করাও খুব কষ্টদায়ক।

ঠাণ্ডার কারণে আমাদের নিম্নআয়ের মানুষদের চরম কষ্টে দিনযাপন করতে হচ্ছে। পীরগঞ্জ কৃষি অধিদপ্তরের থেকে জানা যায় যে আজকের তাপমাত্রা সর্বনিম্ন রেকর্ড করা হয়েছে ১০ডিগ্রি সেলসিয়াস। জানুয়ারি মাসে শীতের সাথে সত্য প্রবাহ ও ঘন কুয়াশা আর কয়েকদিন থাকবে।


সম্পাদক

মোঃ আবুল হাসান মোবাইল নাম্বার 01860003666

বার্তাকক্ষ

মোবাইল নাম্বার 09638870180