কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি:

কুড়িগ্রামে ৫ ইটভাটার বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশিত: ৯:২৫ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২, ২০২১

বিএসটিআইয়ের গুণগত মান সনদ গ্রহণ না করায় কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলার ৫টি ইটভাটার সত্ত্বাধিকারীর বিরুদ্ধে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২ ফেব্রুয়ারি) বিএসটিআই’র রংপুর বিভাগীয় অফিসের ফিল্ড অফিসার (সিএম) মো. দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে ৫টি ইটভাটার সত্ত্বাধিকারীর বিরুদ্ধে পৃথক ৫টি মামলা দায়ের করেন।

মামলার বাদী জানিয়েছেন, গত ২৫ জানুয়ারি  ইটভাটায় স্কোয়াড অভিযান পরিচালনাকালে দেখা যায়, পণ্যের গুণগত মান যাচাই ব্যতীত এবং বিএসটিআই’র গুণগত মান সনদ গ্রহণ না করে ক্লে-ব্রিকস (ইট) উৎপাদন, বিক্রয় এবং বিতরণ অব্যাহত রাখা হয়েছে। যা বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস এন্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন আইন, ২০১৮ এর ২১ ধারার লঙ্ঘন। এ অপরাধে উলিপুর উপজেলার মন্ডলেরহাট এলাকায় অবস্থিত মেসার্স এএস ব্রিকস (ব্রান্ড-ASB) ও মেসার্স ৮৮৮ ব্রিকস (ব্রান্ড-888), গুনাইগাছ এলাকার একেএম ব্রিকস (ব্রান্ড-AKM), আঠারোপাইকা এলাকার মোল্লা ব্রিকস (ব্রান্ড-MBU) এবং হারুনেফরা এলাকার মেসার্স একেএম-২ ব্রিকস ( ব্রান্ড- AKM-2)- এই ৫টি প্রতিষ্ঠানের স্বত্ত্বাধিকারীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে বিএসটিআই’র রংপুর বিভাগীয় দপ্তরের উপ-পরিচালক (পদার্থ) প্রকৌশলী মো. শাহাদৎ হোসেন জানান, এই ৫ প্রতিষ্ঠানকে তাদের বাজারজাতকৃত ক্লে-ব্রিকস (ইট) পণ্যের গুণগত মান যাচাই ও সিএম লাইসেন্স ব্যতীত উৎপাদন, বিক্রয় ও বিতরণ থেকে বিরত থাকতে বলা হয়েছে।


সম্পাদক

মোঃ আবুল হাসান মোবাইল নাম্বার 01860003666

বার্তাকক্ষ

মোবাইল নাম্বার 09638870180