চিলমারিতে অসহায় আছিয়ার পাশে সংযোগ কানেক্টিং পিপল

প্রকাশিত: ৭:৪৬ অপরাহ্ণ, মার্চ ১, ২০২১

কুড়িগ্রাম কুড়িগ্রামের চিলমারি উপজেলার থানাহাট ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের হাটিথানা গ্রামের বাসিন্দা অসহায় বিধবা আছিয়া বেওয়া, স্বামী মারা গেছেন অনেকদিন।

নেই নিজের জায়গাটুকু, থাকেন অন্যের দেয়া জায়গায়। অভাব অনটনের সংসার বিভিন্ন মানুষের সাহায্য সহযোগিতায় খেয়ে না খেয়ে কোন রকমই কাটে তার দিন। তাতেই আবার সাথে আছে বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী ছেলে। এক বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী ছেলেকে নিয়ে তার বাস। আছিয়া বেওয়ার৬ ছেলেমেয়ে ৫ জনের বিয়ে হয়েছে। একটি মেয়ে বিয়ে দিয়েছেন একই এলাকায় তার অবস্থাও ভালো না।
আছিয়া বেওয়ার অসহায়ক্তর জানতে পারে সংযোগ কানেক্টিং পিপল। আশ্বাস দেন পাশে থাকার।

তারী ধারবাহিকতায় সোমবার (৩ মার্চ)অসহায় আছিয়ার মুখে এক চিলতে হাসি ফোটানোর জন্য এবং তাকে স্বাবলম্বী করার জন্য আছিয়া খাতুনকে ৫টি ছাগল উপহার দেয় হয়। ছাগল পেয়ে আছিয়া অনেক খুশি। তিনি বলেন এই ছাগল থেকে ছাগল বাড়বে তখন ছাগল বিক্রি করে সংসারের অভাব কমবে ।

আছিয়া ছাগল পেয়ে সংযোগের সবার জন্য দোয়া করেছেন, এবং তার জন্য সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন। তিনি জেন পাগল ছেলেটাকে নিয়ে ভালোভাবে দিনগুলো পার করতে পারেন।

এব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, ডব্লিউ এম রায়হান শাহকে বিষয়টি অবগত করলে উনি অনেক খুশি হয়ে বলেন, এভাবে সংযোগ কানেক্টিং পিপল দারিদ্র্য অঞ্চল চিলমারীর অসহায় মানুষদের পাশে সবসময় থাকবে। দারিদ্র্য অঞ্চল চিলমারীর অসহায় মানুষগুলোর মুখে হাসি ফোটাবে।

সংযোগ কানেক্টিং পিপল এর এরকম কার্যক্রমে এলাকাবাসী অনেক খুশি। এভাবে সংযোগ কানেক্টিং পিপল সবার বিপদে এগিয়ে আসুক এটাই সবার চাওয়া।

উল্লেখ্য সংযোগ স্বেচ্ছাসেবক মোঃ রবিউল ইসলাম, আছিয়া বেওয়ার বিষয়টি অবগত হওয়ার পর সংযোগেকে জানায়, পরে সংগঠনের সাবাই দ্রুত আছিয়া বেয়ার বাড়িতে যায়,এবং
স্বাবলম্বী করার আশ্বাস প্রদান করে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন সংযোগ কানেক্টিং পিপল এর স্বেচ্ছাসেবক মোঃ সাফাকাত রাব্বি রেজভী, সিফাত,আলমগীর, রবিউল ইসলাম, শামীম আকতার, মিজানুর রহমান সবুজ,নুর আলম নাহিদ, জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।


সম্পাদক

নির্বাহী সম্পাদকঃ মাসুদ রানা পলক প্রকাশক মোঃ আবুল হাসান মোবাইল নাম্বার 01860003666

বার্তাকক্ষ

মোবাইল নাম্বার 09638870180