রাণীশংকৈল মাহারাজা বাজারে ইউপি সদস্যের জিম্মাদার না মানায় দোকান ভাঙচুর!

প্রকাশিত: ৯:৪৮ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ৯, ২০২১

আনোয়ার হোসেন আকাশ,
রাণীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি:
ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈল উপজেলার কাশিপুর মহারাজা বাজারে মমিরুদ্দীন সুপার মার্কেটে বাকি পাওনা আদায়ে ইউপি সদস্য আইনুল হকের জিম্মাদার না মানায় তার ছেলে কতৃক মারধর ও দোকানের জিনিসপত্র ভাঙচুরের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

থানা অভিযোগ সূত্র ও সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী তরিকুল, নুরজামাল ও খাইরুল সহ অনেকে জানান- হালিম ও রবির মধ্যে দোকানে বাকির লেনদেন ছিল। রবি দীর্ঘদিন টাকা পরিশোধ না করায় হালিম ও রবির মধ্যে কথা কাটাকাটি হলে একপর্যায়ে হালিম রবির বাই সাইকেল রেখে দেয়।

সেই ঘটনায় রবি মেম্বার আইনুল কে জিম্মাদার করে কিছু টাকা দিতে চাইলে আর বাকি টাকা পরে দিবে বললে, হালিম পুরো টাকা না পাওয়া পর্যন্ত সাইকেল দিবে না বলে দেয় ৷ এতে আইনুল মেম্বার ক্ষিপ্ত হয়ে যায় ।
এরখানে হালিম ও রবির মধ্যে লেনদেনের বিষয়টি সমাধান হয়ে যায়।

অপরদিকে ইউপি সদস্য আইনুলের ছেলে আফাজ (২৮) তার বাবার কথা না রাখায় হালিমকে খুঁজতে থাকে । হালিম তার চাচাতো ভাই উজ্জ্বলের দোকানে চা খেতে বসলে ইউপি সদস্যের ছেলে আফাজ সে ঘটনা কে কেন্দ্র করে তার দলবল- দেলোয়ার (৪২), তাহের (৪৫) ও ফারুক (৩৫) সহ উজ্জ্বলের দোকানে বসে থাকা হালিমের সাথে ঝগড়া শুরু করে এবং এক পর্যায়ে হাতাহাতি হলে হালিমের চাচাতো ভাই উজ্জ্বল বাঁধা দিতে যায়। আফাজ ও তার দলবল হালিম ও উজ্জ্বল কে মারধর ও দোকানে থাকা জিনিসপত্র ভাংচুর করে।

এ ঘটনায় হালিম বাদী হয়ে রবিবার(৭মার্চ) রাণীশংকৈল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

এ বিষয়ে হালিম বলেন, আইনুল মেম্বারের জিম্মাদার না মানায় তার ছেলে দলবল নিয়ে আমাকে মারধর করলে আমার চাচাতো ভাই উজ্জ্বল বাঁধা দেয়। তখন আমার চাচাতো ভাই উজ্জ্বল কেউ মারধর করে সেই সাথে তার দোকানে থাকা জিনিসপত্র ভাংচুর করে। আমি প্রশাসনের নিকট এ ঘটনায় জড়িত সকলের বিচারের দাবি করছি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে রানীশংকৈল থানা অফিসার ইনচার্জ এস এম জাহিদ ইকবাল জানান, বিষয়টি নিয়ে থানায় একটি অভিযোগ হয়েছে। আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তারা এজহার দিলে আমরা মামলা রেকর্ড করে দিব।


সম্পাদক

নির্বাহী সম্পাদকঃ মাসুদ রানা পলক প্রকাশক মোঃ আবুল হাসান মোবাইল নাম্বার 01860003666

বার্তাকক্ষ

মোবাইল নাম্বার 09638870180