নরসিংদীর রায়পুরায় ওড়না পেচিয়ে প্রবাসীর স্ত্রীর গলায় ফাঁস

প্রকাশিত: ৮:৩৯ অপরাহ্ণ, মার্চ ১৮, ২০২১

 নরসিংদী থেকে এস আলম নরসিংদীর রায়পুরায় সিলিং ফ্যানের সাথে ওড়না পেচিয়ে গলা ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন সাবিকুন্নাহার (২১) নামে এক গৃহবধূ।

বৃহস্পতিবার (১৮ মার্চ) সকালে রায়পুরা পৌর এলাকার শ্রীরামপুর মহল্লার নিজ ঘর থেকে ঝুলে থাকা লাশটি উদ্ধার করে থানা পুলিশ। নিহত গৃহবধূ শ্রীরামপুর মহল্লার প্রবাসী সালাউদ্দিন এর স্ত্রী। পুলিশ ও পরিবারিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলার শ্রীনগর ইউনিয়নের চর-পলাশতুলি গ্রামের সৌদী প্রবাসী সালাউদ্দিনের সাথে ৪ বছর আগে পারিবারিকভাবে সাবিকুন্নাহারের বিয়ে হয়।

বিয়ের পর তাদের দাম্পত্য জীবনে এক কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। তারা শ্রীরামপুরস্থ বাসায় বসবাস করতেন। বুধবার দিবাগত রাত আনুমানিক ১২টার দিকে গৃহবধূ সাবিকুন্নাহারের শিশু কন্যার চিৎকার শুনতে পায় প্রতিবেশিরা। এসময় ঘরের দরজা বন্ধ থাকায় বাড়ির লোকজন অনেক ডাকাডাকি করলেও ভেতর থেকে সাবিকুন্নাহারের সাড়া পাওয়া যায়নি। পরে ঘরের জানালা ভেঙ্গে ভিতরে ঢুকে সিলিং ফ্যানের সাথে ওড়না পেচিয়ে সাবিকুন্নাহারের ঝুলন্ত লাশ দেখতে পায়। এসময় নিহতের এক বছর বয়সী শিশু কন্যাকে জানালা দিয়ে বের করে নিয়ে আসে।

স্বজনদের ধারণা ওই রাতে তার স্বামীর সাথে ফোনে কথাকাটির কারণে রাগে অভিমানে সাবিকুন্নাহার গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা করে থাকতে পারেন। খবর পেয়ে সকালে রায়পুরা থানা পুলিশ ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। রায়পুরা থানার ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, লাশ উদ্ধারের পর নিহতের শরীরে কোন প্রকার আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি।


সম্পাদক

নির্বাহী সম্পাদকঃ মাসুদ রানা পলক প্রকাশক মোঃ আবুল হাসান মোবাইল নাম্বার 01860003666

বার্তাকক্ষ

মোবাইল নাম্বার 09638870180